শনিবার রাতে ধূপগুড়ি ব্লকের খুট্টীমারি এলাকার বাসিন্দারা এক অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তিকে নিয়ে আসেন ধূপগুড়ি থানায়।অঞ্জাত পরিচয় ঐ ব্যক্তি ঠিকঠাক কথা বলতে পারছেন না।তড়িঘড়ি পুলিশের তরফে ঐ ব্যক্তিকে ভর্তি করা হয় ধূপগুড়ি হাসপাতালে। খানিকটা সুস্থ হতেই নিজের পরিচয় জানায় পুলিশকে।জানা যায় শ্যামা ওঁরাও নামে ঐ ব্যক্তি ঝাড়খন্ডের রাঁচি জেলার লোহারদাগা থানা এলাকার বাসিন্দা।গত পাঁচ দিন আগে বাড়ি থেকে বেরিয়ে নিখোঁজ হয়ে যায়।কিভাবে এই এলাকায় পৌছায় তা স্পষ্ট বলতে পারছেন না।ঠিকানা মিলতেই ধূপগুড়ি থানা যোগাযোগ করে লোহারদাগা থানা এলাকায়।পরিবারকে খবর দিতেই পরিবারের লোকজন সোমবার ধূপগুড়ি থানায় পৌছায়।পরিবার সুত্রে জানা যায়, কৃষিকাজ করেন শ্যামা ওরাও,বাড়ি থেকে বেরোনোর পর সকলে খোজাখুজি শুরু করে।পুলিশের মারফত জানতে পেরে ধূপগুড়ি থানায় এলে তার দেখা মেলে।তবে কিভাবে এই এলাকায় এসে পৌছালো তা নিয়ে পরিবারের লোকজন ধন্দে রয়েছে।
পুলিশের উদ্যোগেই ঐ ব্যক্তিকে এদিন রাতে পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়।পুলিশের ভুমিকা নিয়ে যথেষ্ট খুশি শ্যাম ওঁরাওয়ের পরিবার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

eight + 17 =