পঞ্চায়েত ভোটকে পাখির চোখ করে কোমর বেঁধে ময়দানে নামছে তৃণমূল কংগ্রেস।ভোটের মুখেই নতুন প্রকল্পের সূচনা করলো তৃণমূল।জনসংযোগে জোর তৃণমূলের।সোমবার নজরুল মঞ্চে তৃণমূলের মেগা কর্মীসভা।সেই সভাতেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত ধরে শুরু হল তৃণমূলের নতুন প্রকল্প ‘দিদির সুরক্ষা কবচ’।পাশাপাশি সাধারণ মানুষের ঘরে ঘরে পৌঁছে যেতে একটি অ্যাপের কথাও ঘোষণা করা হল।অ্যাপের নাম ‘দিদির দূত’।
আগামী ৬০ দিন রাজ্যের বুথ স্তরে তৃণমূল কংগ্রেস একটি নতুন কর্মসূচি গ্রহণ করছে।এটি কর্মসূচির নাম ‘দিদির সুরক্ষা কবচ’। আগামী ১১ জানুয়ারি থেকে তৃণমূল পর্যায়ে এটির বাস্তবায়ন শুরু হবে। তৃণমূল কংগ্রেসের সাড়ে ৩ লক্ষ কর্মীকে ১০ কোটি মানুষের বাড়িতে পৌঁছতে হবে।
পাশাপাশি রয়েছে নতুন একটি অ্য়াপ ‘দিদির দূত’।প্লে স্টোরে পাওয়া যাচ্ছে।অ্য়াপে শিক্ষা, সামাজিক সুরক্ষা, উপার্জন, খাদ্য, আবাস একাধিক দিক রয়েছে । প্রায় ১৫টি প্রকল্প রয়েছে। এদের মধ্য়ে শিক্ষাশ্রী, কন্যাশ্রী রয়েছে। ওইসব স্কিমকে মানুষের বাড়িতে পৌঁছে দিতে চাইছে তৃণমূল কংগ্রেস। এছাড়াও তৃণমূল কংগ্রেসের ৩৫০ জন নেতা আগামী ২ মাস ধরে প্রতিটি অঞ্চলে রাত্রি কাটাবেন। তাঁরা মানুষের সঙ্গে কথা বলবেন। তাদের অভাব অভিযোগের কথা শুনবেন। তিনি চলে যাওয়ার পরের দিন থেকে তৃণমূলের কর্মীরা বাড়ি বাড়ি গিয়ে সরকারি প্রকল্পের সাহায্য পাচ্ছে কিনা তা দেখবে।
পঞ্চায়েত ভোটের আগে গ্রামে গ্রামে জনসংযোগে জোর তৃণমূলের। আজ নজরুল মঞ্চে ‘দিদির সুরক্ষাকবচ’ কর্মসূচির সূচনা। ‘দুয়ারে সরকারের কাজ তিন-চতুর্থাংশ হয়ে গিয়েছে। দুয়ারে সরকারের আরেক রূপ দিদির সুরক্ষাকবচ’, বললেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

five × 4 =