প্রয়াত নাট্যব্যক্তিত্ব শাঁওলি মিত্র।

প্রয়াত হলেন নাট্যজগতের বিশেষ ব্যক্তিত্ব শাঁওলি মিত্র। প্রায় বছর খানেক ধরে অসুস্থ ছিলেন তিনি।মৃত্যুকালে বয়স হয়েছিল ৭৩ বছর। অবশেষে জীবনের মায়া ত্যাগ করে চলে গেলেন শাঁওলি মিত্র। তাঁর শেষ ইচ্ছে ছিল, মৃত্যুর খবর জনসম্মুখে প্রকাশ না করা।সেই ইচ্ছেকে মর্যাদা দিয়েই শেষকৃত্যের পর খবর প্রকাশ্যে আনা হয় তার পরিবারের তরফ থেকে। তাঁর বাবা-মা ছিলেন নাট্যব্যক্তিত্ব শম্ভু মিত্র এবং তৃপ্তি মিত্র। ২০১৯ সাল থেকে তিনবার নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হন শাঁওলি মিত্র।তাঁর বাবা শম্ভু মিত্রর মতোই সকলের অগোচরে বিদায় নিতে চেয়েছিলেন। তাঁর ইচ্ছাকে মান্যতা দিয়ে রবিবার সন্ধ্যায় শেষকৃত্য সম্পন্ন করেন নাট্যব্যক্তিত্ব অর্পিতা ঘোষ। ২০০৩ সালে ‘সংগীত নাটক অ্যাকাডেমি’ পুরস্কার পান শাঁওলি মিত্র। ২০০৯ সালে পান ‘পদ্মশ্রী’ এবং ২০১২ সালে ‘বঙ্গবিভূষণ’। ঋত্বিক ঘটকের  ‘যুক্তি, তক্কো আর গপ্পো’ ছবিতে অভিনয় করেন শাঁওলি মিত্র।এ ছাড়াও বহু নাটকে কাজ করেছেন তিনি। বলাই বাহুল্য বাংলা থিয়েটার জগতে একটা যুগের অবসান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

twelve − three =