রাজ্যে কোভিড বিধি উঠে যাওয়ার পর এই বছর ফের পূর্ণার্থী ও ভক্ত সমাগমের মধ্যেই অনুষ্ঠিত হচ্ছে বেলুড় মঠে কুমারী পুজো।আজ সোমবার মহাষ্টমীতে মণ্ডপে মণ্ডপে চলছে মাকে অঞ্জলি দেওয়ার উপাচার।আর অষ্ঠমীর দিন সকালে রীতি মেনে বেলুড় মঠে আয়োজন করা হয় কুমারী পুজোর।মায়ের ‘চিন্ময়ী’ রূপে পুজো করা হয় কুমারী দেবীর।গত দুই বছর পরে বেলুড় মঠে ভক্ত সমাগমে আয়োজন করা হয়েছে কুমারী পুজোর।
আজ মহাষ্টমী। কোভিড বিধি মেনে মণ্ডপে মণ্ডপে চলছে অঞ্জলি দেওয়া। অষ্টমীর দিন সকালে রীতি মেনে আয়োজন করা হয় কুমারী পুজোর।

১৬ আশ্বিন (৩ অক্টোবর) সোমবার দিনে মহাষ্টমী পুজো অনুষ্ঠিত হয় ভোর ৫:৩০ মিনিটে।এরপর সকাল ৯ টায় অনুষ্ঠিত হয় কুমারী পূজা।এরপর অপরাহ্ন বিকাল ৪:১৪ মিনিট থেকে ৫:০২ মিনিট পর্যন্ত চলবে সন্ধিপুজা।সমস্ত আচার মেনে পুজোর আয়োজন করা হয়।উল্লেখ্য, ১৯০১ সালে বেলুড় মঠে কুমারী পুজোর সূচনা করেছিলেন স্বামী বিবেকানন্দ।মা সারদা দেবীর উপস্থিতিতে ৯ জন কুমারীর পুজো করা হয়। এরপর থেকেই বেলুড় মঠে কুমারী পুজো হয়।২০০০ সাল পর্যন্ত কুমারী পুজো হত মন্দিরে।কিন্তু, ২০০১ সাল থেকে মন্দির লাগোয়া মাঠে কুমারী পুজো শুরু হয়েছিল। শুধু বেলুড় মঠ নয়,একাধিক পুজো মণ্ডপে কুমারী পুজো অনুষ্ঠিত হবে। প্রসঙ্গত, গত বছর কোভিডবিধি চালু থাকার জন্য দর্শকশূন্য রেখেই বেলুড় মঠে পালিত কুমারী পুজো আয়োজিত হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

thirteen + 14 =