সন্দেশখালিতে ভুয়ো ভিডিও ছড়ানোর অভিযোগ, হাইকোর্টের দ্বারস্থ বিজেপি নেতা গঙ্গাধর কয়াল। ইতিমধ্যেই মুখ ও কণ্ঠস্বর বিকৃত করার অভিযোগে CBI-এর কাছে লিখিত অভিযোগ জানিয়ে তদন্তের দাবি তুলেছেন সন্দেশখালি ২ নম্বর মণ্ডলের বিজেপি সভাপতি গঙ্গাধর কয়াল। পাল্টা গঙ্গাধর কয়ালের বিরুদ্ধে হল FIR,

এরই মধ্যে সন্দেশখালি থেকে তিন তিনটি ভিডিও সামনে এসেছে। লোকসভা ভোটের মাঝে সন্দেশখালি নিয়ে তৃণমূলের পোস্ট করা একটি ভিডিও ঘিরে এখন সরগরম বঙ্গ রাজনীতি। প্রথম ভাইরাল ভিডিওতে দেখা গিয়েছিল সন্দেশখালি ২ নম্বর ব্লকের বিজেপি মণ্ডল সভাপতিকে। গঙ্গাধর কয়ালকে দাবি করতে দেখা গিয়েছিল, ধর্ষণের ঘটনাই ঘটেনি, অথচ অভিযোগ করানো হয়েছে। গোটাটাই শুভেন্দু অধিকারীর নির্দেশ এবং পরিকল্পনামাফিক হয়েছে। বিজেপির মণ্ডল সভাপতিকে দাবি করতে শোনা গিয়েছিলো যে, শুভেন্দু অধিকারী বলেছিলেন ওখানকার দাপুটে নেতাদের গ্রেফতার করাতে না পারলে তোমরা আন্দোলন দাঁড় করাতে পারবে না। সন্দেশখালিতে তৃণমূলের তরফে প্রকাশ্যে আনা ভিডিও ঘিরে ক্রমেই ঘোলা হচ্ছে জল। অভিযোগ, পাল্টা অভিযোগে চড়ছে পারদ। আর এরই মধ্যে ভুয়ো ভিডিও ছড়ানোর অভিযোগ, হাইকোর্টের দ্বারস্থ গঙ্গাধর কয়াল। পাল্টা গঙ্গাধর কয়ালের বিরুদ্ধে হল FIR,

মুখ ও কণ্ঠস্বর বিকৃত করার অভিযোগে CBI-এর কাছে লিখিত অভিযোগ জানিয়ে তদন্তের দাবি তুলেছেন বিজেপি সভাপতি। সন্দেশখালিতে ভুয়ো ভিডিও ছড়ানোর অভিযোগ, হাইকোর্টের দ্বারস্থ বিজেপি নেতা গঙ্গাধর কয়াল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

nineteen − eight =